ঢাকা , শুক্রবার, ২৩ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১০ ফাল্গুন ১৪৩০ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
বিনা খরচে আরো ৫০ ক‍‍র্মী মালয়েশিয়ায় যাচ্ছে আজ ভাষা শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়েছে বিজনেস অটোমেশন সদস্যরা রিয়াদে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবস পালিত আন্ত‍র্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের নানা আয়োজন বিশ্বের বিভিন্ন দেশে মালয়েশিয়ায় চালু হচ্ছে ই-পাসপোর্ট সেবা বিনা খরচে কর্মী পাঠানো বাড়াতে সকলকে দায়িত্বশীল থাকতে হবে: প্রবাসী কল্যাণ সচিব বিনা খরচে মালয়েশিয়ায় যাচ্ছে আরো ১১৯ ক‍‍র্মী, আজ আনুষ্ঠানিক বিদায় মালয়েশিয়ায় অভিবাসীদের পদচারণ: ২২০টি স্থানে ইমিগ্রেশনের নজরদারি প্রবাসীদের বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আইনমন্ত্রীর সাথে সেন্টার ফর এনআরবি প্রতিনিধি দলের বৈঠক মুক্তি পেলেন মালয়েশিয়ায় আটক বিএনপি নেতা কাইয়ুম

প্রবাসীদের বিনিয়োগের বিষয়ে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রীর সাথে সেন্টার ফর এনআরবি প্রতিনিধি দলের বৈঠক

নিজস্ব প্রতিবেদক
  • আপডেটের সময় : ০৮:৫৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪
  • / 39

 

প্রবাসীদের বিনিয়োগ আকর্ষণের প্রধান কাজ হচ্ছে বিনিয়োগের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা। তাছাড়া বিনিয়োগের সঠিক তথ্য ও নীতি সহায়তা প্রবাসীদের বিনিয়োগে আগ্রহী করবে। বৃহস্পতিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) সেন্টার ফর এনআরবি’র একটি প্রতিনিধি দল বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহাসানুল ইসলাম টিটো এমপি র সাথে তার কার্যালয়ে সাক্ষাৎকালে এ কথা বলেন । সেন্টার ফর এনআরবি’র চেয়ারপার্সন এম এস সেকিল চৌধুরীর নেতৃত্বে প্রতিনিধি দলে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সুয়েব আহমদ চৌধুরী, মাহাবুব আনাম, আওরঙ্গজেব চৌধুরী, মাশিউজ্জামান সেরনিয়াবাত ও মেহেদী হাসান চৌধুরী । এ সময় মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

 

বৈঠকে প্রতিনিধি দল প্রবাসীদের বিনিয়োগ সহায়ক নানা প্রস্তাব তুলে ধরেন, যার মধ্যে রয়েছে, প্রবাসী বিনিয়োগকারীদের জন্য বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে বিশেষ সেল গঠন করা।  বিনিয়োগ সহায়ক নীতিমালা ও দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা গ্রহণ। প্রবাসীদের বন্ডে বিনিয়োগ বিষয়ে অংশীজন ও বিশেষজ্ঞদের সাথে আলোচনা করে দীর্ঘ মেয়াদি নীতিমালা গ্রহণ করা। শেয়ার বাজার ও বন্ড মার্কেটে প্রবাসীদের বিনিয়োগে উৎসাহ দেয়া, প্রচার ও নীতিসহায়তা দেয়া। প্রবাসীদের সম্পদ ও রেমিটেন্স সংশ্লিষ্ট কর বিষয়ক জটিলতা নিরসন ও পদ্ধতি সহজ করা। বিনিয়োগ আকর্ষণের জন্য বিদেশে দেশের ইতিবাচক বিষয়গুলোর প্রচারণার ব্যবস্থা এবং খাত সংশ্লিষ্ট সরকারি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানকে এ কাজে যুক্ত করা।

 

 

এছাড়া  প্রতিনিধি দল আরো বলেন, প্রবাসীদের নিয়ে বিনিয়োগ পরামর্শক গ্রুপ তৈরি, প্রবাসী ব্যবসায়ীদের দেশে ম্যাচ ফান্ডিং এর মাধ্যমে যোগ্যতা অনুযায়ী ঋণ দেয়া ব্যবস্থা করা (দেশীয় ব্যাংক/আর্থিক প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে)। অঞ্চলভিত্তিক প্রত্যাগত প্রবাসীদের আর্থিক ও অন্যান্য সহায়তা দেয়ার মাধ্যমে তাদের অর্জিত দক্ষতা বাণিজ্য ও বিনিয়োগে কাজে লাগানো। প্রবাসীদের বিনিয়োগের সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ও প্রবাসীদের বাণিজ্য সম্প্রসারণে মেধাবী বাণিজ্য কর্মকর্তাদের মিশনসমূহে নিয়োগ করা। নিষ্ঠাবান সেবা প্রদানকারী ও দেশের বাণিজ্যিক ভাবমূর্তি উন্নয়নে ভূমিকা রাখা কর্মকর্তাদের স্বীকৃতি প্রদানের ব্যবস্থা করা।

 

বৈঠকে মন্ত্রী মনোযোগ সহকারে প্রতিনিধিদলের বক্তব্য শুনেন এবং তার মন্ত্রণালয়ের অধীন বিষয়গুলো বিবেচনার আশ্বাস দেন। তিনি বিভিন্ন দেশে অনুষ্ঠেয় মেলা সমূহে বাংলাদেশের পণ্য বিশেষ করে হস্তশিল্প ও বাংলাদেশের খাদ্য পণ্য জনপ্রিয় করা ও বিপণনে প্রবাসীদের সহায়তা কামনা করেন।

 

বিদেশে মিশনগুলোতে বাণিজ্য কর্মকর্তা নিয়োগ বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, ইতিমধ্যে আমরা বিভিন্ন দেশে নিয়োজিত কর্মকর্তাদের সাথে জুম বৈঠক করেছি এবং তাদেরকে নানা নির্দেশনা দিয়েছি। এছাড়া তিনি এনআরবি সেন্টারের ব্রান্ডিং কার্যক্রমের প্রশংসা করেন।

শেয়ার করুন

প্রবাসীদের বিনিয়োগের বিষয়ে বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রীর সাথে সেন্টার ফর এনআরবি প্রতিনিধি দলের বৈঠক

আপডেটের সময় : ০৮:৫৬ অপরাহ্ন, বৃহস্পতিবার, ৮ ফেব্রুয়ারী ২০২৪

 

প্রবাসীদের বিনিয়োগ আকর্ষণের প্রধান কাজ হচ্ছে বিনিয়োগের নিরাপত্তা নিশ্চিত করা। তাছাড়া বিনিয়োগের সঠিক তথ্য ও নীতি সহায়তা প্রবাসীদের বিনিয়োগে আগ্রহী করবে। বৃহস্পতিবার (৮ ফেব্রুয়ারি) সেন্টার ফর এনআরবি’র একটি প্রতিনিধি দল বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহাসানুল ইসলাম টিটো এমপি র সাথে তার কার্যালয়ে সাক্ষাৎকালে এ কথা বলেন । সেন্টার ফর এনআরবি’র চেয়ারপার্সন এম এস সেকিল চৌধুরীর নেতৃত্বে প্রতিনিধি দলে অন্যান্যের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন সুয়েব আহমদ চৌধুরী, মাহাবুব আনাম, আওরঙ্গজেব চৌধুরী, মাশিউজ্জামান সেরনিয়াবাত ও মেহেদী হাসান চৌধুরী । এ সময় মন্ত্রণালয়ের কর্মকর্তারা উপস্থিত ছিলেন।

 

বৈঠকে প্রতিনিধি দল প্রবাসীদের বিনিয়োগ সহায়ক নানা প্রস্তাব তুলে ধরেন, যার মধ্যে রয়েছে, প্রবাসী বিনিয়োগকারীদের জন্য বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ে বিশেষ সেল গঠন করা।  বিনিয়োগ সহায়ক নীতিমালা ও দীর্ঘমেয়াদি পরিকল্পনা গ্রহণ। প্রবাসীদের বন্ডে বিনিয়োগ বিষয়ে অংশীজন ও বিশেষজ্ঞদের সাথে আলোচনা করে দীর্ঘ মেয়াদি নীতিমালা গ্রহণ করা। শেয়ার বাজার ও বন্ড মার্কেটে প্রবাসীদের বিনিয়োগে উৎসাহ দেয়া, প্রচার ও নীতিসহায়তা দেয়া। প্রবাসীদের সম্পদ ও রেমিটেন্স সংশ্লিষ্ট কর বিষয়ক জটিলতা নিরসন ও পদ্ধতি সহজ করা। বিনিয়োগ আকর্ষণের জন্য বিদেশে দেশের ইতিবাচক বিষয়গুলোর প্রচারণার ব্যবস্থা এবং খাত সংশ্লিষ্ট সরকারি বেসরকারি প্রতিষ্ঠানকে এ কাজে যুক্ত করা।

 

 

এছাড়া  প্রতিনিধি দল আরো বলেন, প্রবাসীদের নিয়ে বিনিয়োগ পরামর্শক গ্রুপ তৈরি, প্রবাসী ব্যবসায়ীদের দেশে ম্যাচ ফান্ডিং এর মাধ্যমে যোগ্যতা অনুযায়ী ঋণ দেয়া ব্যবস্থা করা (দেশীয় ব্যাংক/আর্থিক প্রতিষ্ঠানের মাধ্যমে)। অঞ্চলভিত্তিক প্রত্যাগত প্রবাসীদের আর্থিক ও অন্যান্য সহায়তা দেয়ার মাধ্যমে তাদের অর্জিত দক্ষতা বাণিজ্য ও বিনিয়োগে কাজে লাগানো। প্রবাসীদের বিনিয়োগের সর্বোচ্চ নিরাপত্তা ও প্রবাসীদের বাণিজ্য সম্প্রসারণে মেধাবী বাণিজ্য কর্মকর্তাদের মিশনসমূহে নিয়োগ করা। নিষ্ঠাবান সেবা প্রদানকারী ও দেশের বাণিজ্যিক ভাবমূর্তি উন্নয়নে ভূমিকা রাখা কর্মকর্তাদের স্বীকৃতি প্রদানের ব্যবস্থা করা।

 

বৈঠকে মন্ত্রী মনোযোগ সহকারে প্রতিনিধিদলের বক্তব্য শুনেন এবং তার মন্ত্রণালয়ের অধীন বিষয়গুলো বিবেচনার আশ্বাস দেন। তিনি বিভিন্ন দেশে অনুষ্ঠেয় মেলা সমূহে বাংলাদেশের পণ্য বিশেষ করে হস্তশিল্প ও বাংলাদেশের খাদ্য পণ্য জনপ্রিয় করা ও বিপণনে প্রবাসীদের সহায়তা কামনা করেন।

 

বিদেশে মিশনগুলোতে বাণিজ্য কর্মকর্তা নিয়োগ বিষয়ে মন্ত্রী বলেন, ইতিমধ্যে আমরা বিভিন্ন দেশে নিয়োজিত কর্মকর্তাদের সাথে জুম বৈঠক করেছি এবং তাদেরকে নানা নির্দেশনা দিয়েছি। এছাড়া তিনি এনআরবি সেন্টারের ব্রান্ডিং কার্যক্রমের প্রশংসা করেন।