1. monir212@gmail.com : admin :
  2. merajhgazi@gmail.com : News Desk : Meraj Hossen Gazi
  3. desk@probashbarta.com : News Desk : News Desk
রবিবার, ০১ অগাস্ট ২০২১, ১০:৫৩ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
মালয়েশিয়া প্রবাসীদের সংকট নিরসনে অধিকার পরিষদের তিন দাবী অবৈধ অভিবাসীদের দেশে ফিরতে মালয়েশিয়ায় বিশেষ কাউন্টার প্রশিক্ষণ শেষে ১৩, ৫০০ টাকা পাবেন ফিরে আসা প্রবাসীরা: মন্ত্রী ইমরান আহমদ আমিরাতে বঙ্গবন্ধুর জন্মশতবার্ষিকী উপলক্ষে আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত ইতালি প্রবেশে বাংলাদেশিদের ওপর নিষেধাজ্ঞা আবার বাড়ল মালয়েশিয়ায় কর্মীদের ভিসা নবায়নে বিলম্ব, দ্রুত সমাধানের চেষ্টা ইমিগ্রেশনের অর্থ সহায়তা পাবেন দেশে ফেরা ২ লাখ প্রবাসী বিদেশগামী শিক্ষার্থীদের ভ্যাকসিনের আবেদনের মেয়াদ বাড়ল ভূমধ্যসাগরে আবারও নৌকাডুবি, অন্তত ৫৭ জনের মৃত্যু স্পেনের মাদ্রিদে প্রবাসীদের ঈদ আনন্দ উৎসব ও নৈশভোজ

হাসপাতালে মৃত্যুশয্যায় ওমান প্রবাসী মঞ্জু, অর্থাভাবে সুচিকিৎসা ব্যাহত

নিউজ ডেস্ক
  • প্রকাশিত : রবিবার, ২৬ মে, ২০১৯
Print Friendly, PDF & Email

 

এইচ এম হুমায়ুন কবির, মাস্কাট ওমান: ওমান প্রবাসী রেমিটেন্সযোদ্বা মোঃ মঞ্জুর আলমের বাঁচার আকুতিতে ভারি হয়ে উঠেছে ওমানের আল-খোদের সুলতান হাসপাতালের চারিদিক।

এইতো সেদিন মাত্র দুই বছর আগে মরুর দেশ ওমানে স্বপ্ন পূরণের প্রত্যয়,নিজের পরিবারের অর্থনৈতিক সমৃদ্ধি আর দেশে রেমিটেন্স পাঠিয়ে অর্থনীতির চাঁকা গতিশীল করার লক্ষে ওমানে পাড়ি জমিয়েছিলেন চট্টগ্রাম জেলার ভোজপুর থানার আমান বাজার দোফারগীল গ্রামের মৃত মোঃ আব্দুর রহমানের ছেলে মোঃ মঞ্জুর আলম।

প্রবাসী মন্জুর আলম

স্বপ্নের ফেরিওয়ালা হয়ে স্বপ্ন পূরণের নেশায় স্ত্রী সন্তান রেখে উত্তপ্ত মরুভূমির ৩৫-৪০° তাপমাত্রায় দুর্সহ গরম আর বৈরি পরিবেশে নিজের সকল স্বাধ আহ্লাদকে বিসর্জন দিয়ে রাতদিন বিল্ডিং কন্সট্রাকশানের কাজ করে নিজের পরিবারের চাহিদা মিটিয়ে মোটামোটি বেশ ভালোভাবেই দিন যাপন করে আসছিলো। কিন্তু হঠাৎ অসুস্থ হয়ে হাপাতালে ভর্তি হলে পরীক্ষা নিরীক্ষা করে ডাক্তারগণ জানান খাদ্যনালী ফেটে যাওয়া ও আরো কিছু জটিল সমস্যাজনিত কারনে এখনই অপারেশন না করলে ঘটে যেতে পারে যেকোন বড় ধরনের দুর্ঘটনা (মৃত্যু ঝুঁকি) পরে ডাক্তারদের পরামর্শ মতো সাথে সাথে দীর্ঘ সময় নিয়ে অস্রপচার করে তাকে তাৎক্ষণিক বিপদ মুক্ত করা গেলেও অর্থাভাবে এখন চিকিৎসা চলছে ঢিমেতালে।

সুলতান হসপিটালটিতে চিকিৎসা ব্যয়বহুল হওয়ায় তাকে নিজ দেশে পাঠিয়ে উন্নত চিকিৎসার জন্যে পরামর্শ দিয়েছেন হাপাতালটির ডাক্তাররা। কিন্তু হাসপাতালের বিল পরিশোধ না করে তো আর হসপিটাল থেকে রিলিজ নেয়া সম্ভব হচ্ছে না তাই অসহায় এই প্রবাসীর পরিবারের সাথে যোগাযোগ করে তার সাথে কর্মরত অন্য শ্রমিকরা কিন্তু পরিবার থেকে একটাই উত্তর আমাদের সব ভিটেমাটি বিক্রি করেও দুই লাখ টাকাও হবে না। তাদের পক্ষে চিকিৎসা ব্যয় ভার বহন করা একেবারেই অসম্ভব।

জানা যায়, তার বাবাও বেঁচে নেই। তার স্ত্রী জানিয়েছে দুবেলা-দুমুঠো খেতে তাদের অনেক বেগ পেতে হয়। এমতাবস্থায় হাসপাতালে মৃত্যুর সাথে পাঞ্জা লড়া অসুস্থ প্রবাসী মোহাম্মদ মঞ্জুর আলমের স্ত্রী সন্তানরা তাকে দেশে ফেরত নিয়ে চিকিৎসা করাতে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী তথা সংশ্লিষ্ট মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী ও ওমানে নিযুক্ত মান্যবর রাষ্ট্রদূত এর দৃষ্টি আকর্ষণ করেছেন।

অন্যদিকে হসপিটাল থেকে চাপ দেয়া হচ্ছে তার চিকিৎসার ঔষধ পত্রাদি এবং অপারেশন বাবদ খরচ এর টাকার জন্য,কিন্তু কোনো ভাবেই টাকা জোগাড় করা সম্ভব হচ্ছে না।

কথা হয় এই প্রতিবেদকের সাথে মাস্কাট এর ব্যাবসায়ী এইচ এম ইসমাঈল হুসাইন এর সাথে। তিনি প্রতিবেদককে জানান, “অসহায় এই প্রবাসীর ওমানে নেই কোন আত্মীয় স্বজন,নেই কোন পরিচিত মানুষ তাই আমি নিজেই কিছু সহযোগীতা করছি এবং চেষ্টা করছি তহবিল সংগ্রহ করে হসপিটাল থেকে রিলিজ করে দেশে পাঠানোর জন্য। কিন্তু টাকার পরিমাণ অনেক বেশি হওয়ায় যোগান দিতে আমার খুব কষ্ট হচ্ছে। এমতাবস্থায় আমি না পারছি সরে যেতে না পারছি তাকে হসপিটাল থেকে রিলিজ করে তার প্রিয়তমা স্ত্রী সন্তানদের কাছে পৌঁছাতে । আমি নিজেও আসলে একটা পীড়ায় ভূগছি।”

ব্যবসায়ী এইচ এম ইসমাঈল হুসাইন দুঃখ প্রকাশ করে বলেন, “নিজের জীবন যৌবন সব কিছু বিসর্জন দিয়ে আমরা প্রবাসীরা বিদেশে পড়ে আছি দেশ মাতৃকা এবং নিজের পরিবারের কথা চিন্তা করে। দেশকে রেমিটেন্স পাঠিয়ে সমৃদ্ধ করার চেষ্টাও করছি নিজেদের সাধ্য অনুযায়ী কিন্তু কি পাচ্ছি আমরা ? এখন একজন প্রবাসী হসপিটালে অসুস্থ হয়ে পড়ে আছেন অথচ সময়ের ব্যাবধানে এতদিন তিনি তার পরিবার রাষ্ট্র, নিজের আত্মীয়-স্বজন সবাইকে অর্থনৈতিক যোগান দিয়েছেন কিন্তু আজ তিনি হসপিটালে অসুস্থ হয়ে পড়ে আছেন তার অসুস্থ দেহটা নিজের দেশে ফেরত যেতে পারছে না এটা অত্যন্ত দুঃখের বিষয়।”

তিনি  মাননীয় প্রধানমন্ত্রী এবং সংশ্লিষ্টদের কাছে দাবি জানিয়েছেন যেন বিনা খরচে অসুস্থ রোগীদের কে বাংলাদেশে প্রেরণের একটা ব্যবস্থা করা হয় এবং তাদের চিকিৎসা ব্যবস্থা করা হয়। আট লক্ষ ওমান প্রবাসীদের আকুতি যেন অসুস্থ হলে এবং কোন প্রবাসী মৃত্যুবরণ করলে তাদেরকে বিনা খরচে বাংলাদেশী সরকারি যে বিমান সংস্থা রয়েছে সেটির মাধ্যমে দেশে প্রেরণের ব্যবস্থা করা হয় তাহলেই গরিব দুঃখী ও সাধারণ মানুষদের নিয়ে বঙ্গবন্ধুর সোনার বাংলা বিনির্মাণের যে স্বপ্ন সেটি পূর্ণতা পাবে বলে মনে করছেন ওমান প্রবাসীরা।

কোন হৃদয়বান ব্যাক্তি যদি সহযোগিতা করতে চান তাহলে নিচের হিসাব নম্বরে আপনার অর্থ সহযোগিতা পাঠিয়ে নিজের দায়ীত্ব পালন করতে পারেন।
যোগাযোগ,00968-96091181,,বা, 00968-94671424,
হিসাব নম্বর Bank Muscat, Name, Ismail fariduddin,03180544590037.

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই জাতীয় আরও খবর
© 2018 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। এই ওয়েবসাইটের লেখ, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যাবহার বেআইনি
Theme Customized BY LatestNews