1. monir212@gmail.com : admin :
  2. user@probashbarta.com : helal Khan Probashbarta : Helal Khan
  3. merajhgazi@gmail.com : News Desk : Meraj Hossen Gazi
বুধবার, ০২ ডিসেম্বর ২০২০, ১০:০২ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
মালয়েশিয়ায় বিদেশি কর্মীকে পুলিশের লাথি, নেট দুনিয়ায় ভাইরাল জাতীয় দিবসে বর্ণিল সাজে আমিরাত, নিষিদ্ধ গণজমায়েত কুয়েত প্রবাসীদের ‘সার্ভিস বেনিফিট’ পেতে দূতাবাসের নির্দেশনা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য বিরোধীদের কঠোরভাবে দমনের দাবি স্পেন আওয়ামী লীগের কাতার প্রবাসীদের ফেরাতে রাষ্ট্রদূতের বৈঠক ছুটিতে এসে আটকেপড়া প্রবাসীদের সুখবর দিল জর্ডান মালয়েশিয়া প্রবাসীদের দ্রুত পাসপোর্ট প্রদানে স্বরাষ্ট্রমন্ত্রীর কাছে স্বারকলিপি মালয়েশিয়ায় বিদেশি শিক্ষার্থীদের খাদ্য সহায়তা প্রদান মালয়েশিয়ায় বিদেশি কর্মীদের করোনা পরীক্ষা বাধ্যতামূলক কাতারে প্রবাসীদের স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার আহ্বান দূতাবাসের

সৌদিতে কফিলের অনুমতি ছাড়াই চাকরি পরিবর্তনের সুযোগ

প্রবাস বার্তা ডেস্ক
  • প্রকাশিত : বৃহস্পতিবার, ১৯ নভেম্বর, ২০২০
Print Friendly, PDF & Email

 

সৌদি আরবে প্রবাসী কর্মীরা তাদের নিয়োগকর্তার (কফিল) অনুমতি ছাড়াই চাকরি পরিবর্তন করতে পারবেন। দেশটির মানবসম্পদ এবং সামাজিক উন্নয়ন মন্ত্রণালয় বলছে এর জন্য ৮টি শর্ত মানতে হবে। চলতি নভেম্বর মাসে দেশটির শ্রম আইন সংশোধন করেছে। সংশোধনে কাফালাভিত্তিক বাধ্যতামূলক নিয়োগ চুক্তি শিথিলের কথা জানানো হয়েছে।

নিয়োগ কর্তার অনুমতি ছাড়া যেসব শর্তের আওতায় প্রবাসী কর্মীরা এসব সুবিধা নিতে পারবেন সেগুলো হলো- 

  • সৌদি আরবে যাওয়ার তিন মাস পরও নিয়োগদাতা ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান কাজের চুক্তিপত্র দিতে ব্যর্থ হলে।
  • টানা তিন মাস কোনো কর্মীকে চুক্তিপত্রে উল্লেখিত বেতন-ভাতা প্রদান না করা হলে।
  • নিয়োগদাতা অবৈধ মানব পাচারে জড়িত, কর্মীর কাছে এমন সাক্ষ্য-প্রমাণ থাকে।
  • ইকামা বা কর্ম-ভিসার আওতায় সৌদিতে অবস্থানের সময় পেরিয়ে গেলে মালিকের অনুমতি ছাড়াই সৌদি আরব ত্যাগ করতে পারবেন কর্মীরা।
  • ভ্রমণ, কারাবাস, মৃত্যু বা অন্য কোনো কারণে যদি নিয়োগদাতা অনুপস্থিত থাকেন।
  • মালিকের অসাধুতা অবলম্বনের অভিযোগ যদি প্রবাসী কর্মী করেন এবং তিনি যদি সেই অন্যায়ে জড়িত না হন, সে ক্ষেত্রেও তাঁর নিরাপত্তা বিবেচনায় কর্মস্থল বদলের সুযোগ থাকবে।
  • শ্রমপরিবেশ নিয়ে মালিকের সঙ্গে বিরোধ দেখা দিলে এবং অনুরোধ সত্ত্বেও নিয়োগদাতার প্রতিনিধি সেই বিরোধ অবসানের শুনানি গ্রহণ করতে পরপর দুইবার ব্যর্থ হলে বা শান্তিপূর্ণ সমাধান না করতে পারলে।
  • বর্তমান নিয়োগদাতা যদি কোনো শ্রমিককে ছাঁটাই করার ইচ্ছা প্রকাশ করে, সে ক্ষেত্রেও চাকরি বদলানো যাবে।

এছাড়া বিদেশি কর্মী নিয়োগকারীরাও সংশোধনীর আওতায় পড়বেন। এক্ষেত্রে তাদের যে চারটি মূল শর্তপূরণ করতে হবে সেগুলো হলো- 

  •  নিয়োগকর্তার প্রতিষ্ঠানটি নিয়ম ও শর্ত মোতাবেক ভিসাপ্রাপ্ত হওয়ার যোগ্য হলে।
  • নিয়মিত কর্ম-পরিবেশ মূল্যায়নে নিজস্ব উদ্যোগও রাখতে হবে।
  • প্রতিষ্ঠানটি বেতন-ভাতা সুরক্ষা কর্মসূচির সঙ্গে সহাবস্থানে থাকলে।
  • শ্রমিকদের চুক্তির দলিল আইনি প্রক্রিয়ায় সংগ্রহ করে তা ডিজিটাল মাধ্যমে নিবন্ধন।

 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই জাতীয় আরও খবর
© 2018 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত। এই ওয়েবসাইটের লেখ, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যাবহার বেআইনি
Theme Customized BY LatestNews