1. monir212@gmail.com : admin :
  2. user@probashbarta.com : helal Khan Probashbarta : Helal Khan
  3. merajhgazi@gmail.com : News Desk : Meraj Hossen Gazi
সোমবার, ০৬ জুলাই ২০২০, ০৪:০০ অপরাহ্ন

৯ মাসে সৌদি ফেরত ১২ হাজার বাংলাদেশি কর্মী

নিউজ ডেস্ক
  • প্রকাশিত : শনিবার, ২৮ সেপ্টেম্বর, ২০১৯
  • ৮ পঠিত
প্রতীকী ছবি
Print Friendly, PDF & Email

 

প্রবাস বার্তা, ডেস্ক রিপোর্ট: সৌদি আরব থেকে গেল ৯ মাসে দেশে ফিরেছেন ১২ হাজার বাংলাদেশি কর্মী। যার মধ্যে এক হাজার নারী কর্মীও রয়েছেন।

বৃহস্পতিবার (২৬ সেপ্টেম্বর) প্রবাসীকল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয় সম্পর্কিত সংসদীয় স্থায়ী কমিটির বৈঠকে প্রবাসী মন্ত্রণালয়ের উপস্থাপন করা এক প্রতিবেদনে এ তথ্য পাওয়া গেছে।

ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রাম এর তথ্য অনুযায়ী চলতি বছরের ১৮ জানুয়ারি থেকে সেপ্টেম্বর পর্যন্ত প্রায় ১২ হাজার বাংলাদেশি সৌদি আরব থেকে দেশে ফিরেছেন। যার মধ্যে গত ২৬ আগস্ট ফিরে আসা ১১১ জন নারী শ্রমিকের ৩৮ জন যৌন নির্যাতনের শিকার হয়েছিলেন আর ৪৮ জনকে নিয়মিত বেতন-ভাতা দেয়া হতো না।

কমিটি সূত্রে জানা গেছে, সৌদি ফেরত নারী শ্রমিকদের সঙ্গে কথা বলে মন্ত্রণালয় তাদের ফিরে আসার ১১টি কারণ চিহ্নিত করেছে। কোন কোন নারী শ্রমিক ফিরে আসার একাধিক কারণ উল্লেখ করেছেন। কেউ কেউ বলছেন যৌন নির্যাতনের শিকার হওয়ার পাশাপাশি বেতন ভাতা পাননি ঠিকমতো। যে কারণে তাদের ফিরে আসতে হয়েছে।

ব্র্যাক মাইগ্রেশন প্রোগ্রামের প্রধান শরীফুল ইসলাম বলেছেন, ফেরত আসা শ্রমিকদের অনেকের কাছেই বৈধ কাগজপত্র রয়েছে। কেন তারা ফিরে আসছেন সেটা খুঁজে বের করা জরুরী। পরে সে অনুযায়ী করণীয় ঠিক করতে হবে। কারণ না জানলে করণীয় ঠিক করা যাবে না।

সংশ্লিষ্ট সূত্রমতে ২০১৫ সালে এক চুক্তির পর বাংলাদেশ থেকে সৌদি আরবে নারী শ্রমিক পাঠানো শুরু হয়। কিন্তু কিছুদিন যেতে না যেতেই নারী শ্রমিকদের ফেরত আসা শুরু হয়। ফিরে আসা শ্রমিকরা যৌন নির্যাতনের অভিযোগ জানালেও মন্ত্রণালয় নিশ্চিত ছিল। সৌদি আরব সফর করে আসা সংসদীয় একটি দল দাবি করেছিল নারী গৃহশ্রমিকদের ফেরার কারণ নির্যাতন নয়। কিন্তু বরাবরই ফিরে আসা শ্রমিকদের অভিযোগ ছিল একই। নারী শ্রমিক ফেরত আসার দুই দিন পর গত ২৮ আগস্ট অনুষ্ঠিত কমিটির চতুর্থ বৈঠকে কমিটির সদস্য আলী আশরাফ প্রসঙ্গটি তুলেছিলেন। এর পরিপ্রেক্ষিতে মন্ত্রণালয় কমিটির কাছে এ সংক্রান্ত প্রতিবেদন জমা দিয়েছে।

কমিটি সূত্র জানায়, বৈঠকে আলোচনা শেষে প্রবাসী বাংলাদেশিদের সামগ্রিক কল্যাণ নিশ্চিত করার জন্য বর্তমানে বিশ্বের ২৬টি  দেশে বাংলাদেশ মিশনে মোট ২৯টি  শ্রমকল্যাণ উইং চালু রয়েছে বলে জানায় প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক মন্ত্রণালয়।

এছাড়া নতুন শ্রমবাজার অনুসন্ধান ও শ্রমবাজার সমপ্রসারণের বিষয়ে বোয়েসেল জাপানসহ মধ্যপ্রাচ্যের বিভিন্ন দেশে কর্মী প্রেরণের পদক্ষেপ নিয়েছে প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান মন্ত্রণালয়।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এই জাতীয় আরও খবর
© 2018 সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত । এই ওয়েবসাইটের লেখ, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যাবহার বেআইনি
Theme Customized BY LatestNews