Print Friendly, PDF & Email

আহমাদুল কবির, মালয়েশিয়া: মালয়েশিয়াস্থ সিলেট ডায়নামিক ফেডারেশন এর উদ্যেগে ইফতার ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে । ২০ মে সোমবার সন্ধ্যায় কুয়ালালামপুর বুকিত বিনতাং হোটেল মেট্রোতে এ ইফতার মাহফিল ও আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়।

সিলেট ডায়নামিক ফেডারেশনের সভাপতি সৈয়দ এনামুল ইসলামের সভাপতিত্বে অনুষ্টিত ইফতার পূর্ব আলোচনা সভার সঞ্চালনা করেন সংগঠনের সাধারণ সম্পাদক মোঃ এনামুল হক ।

ইফতারে আমন্ত্রিত অতিথি

ইফতার মাহফিলে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চিকিৎসক ও গবেষক ডাঃ আবু আবদুল্লাহ। বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন ডিন অব মেডিসিন বিভাগ মাসা ইউনিভারসিটি মালয়েশিয়ার প্রফেসর ডাঃ আবুল বাশার এবং প্রধান আলোচক হিসেবে আলোচনা পেশ করেন বিশিষ্ট শিক্ষাবিদ ড. সাইফুল ইসলাম।

কোরআন তেলাওয়াত করেন অর্থ ও অফিস বিষয়ক সম্পাদক মাওলানা মোঃ আশরাফুল আলম। এ সময় বক্তারা পবিত্র মাহে রমজানের গুরুত্ব ও তাৎপর্য নিয়ে বিস্তারিত আলোচনায় বলেন, রহমত বরকত মাগফেরাত ও নাজাত লাভের মাস রমজান। এ মাস আল্লাহর কাছ থেকে চেয়ে নেয়ার মাস। যে যত বেশি চাইতে পারে, আল্লাহ তায়ালা তাকে তত বেশি দান করেন।
রমজান মাসে আল্লাহর অফুরন্ত অনুগ্রহ লাভের অতি মূল্যবান দুটি সময় আছে। যে সময় আল্লাহর কাছে কোনো কিছু প্রার্থনা করলে আল্লাহ বান্দাকে ফেরত দেন না। রমজানে এ সময়টিতে দোয়া করে কাঙ্খিত জিনিস লাভের সুর্বণ সুযোগ গ্রহণ করতে পারে রোজাদার।

রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামকে জিজ্ঞাসা করা হয়েছিল কোন সময়ের দোয়া মহান আল্লাহ বেশি গ্রহণ করেন। জবাবে রাসুলুল্লাহ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লাম বলেছিলেন-
‘রাতের দুই তৃতীয়াংশ শেষের দোয়া অর্থাৎ রাতের দুই ভাগ অতিক্রম করার পর যে দোয়া করা হয়।’
প্রিয় নবি সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়া সাল্লামের ঘোষিত রাতের দুই তৃতীয়াংশের পরের সময় এটি। এ সময় দোয়া কবুলের জন্য বিশেষ সময়। এ সময়টি আল্লাহ তাদের চাহিদা পূরণের আশ্বাস দিয়ে ডাকতে থাকেন । ‘কে আমাকে ডাকবে? যার ডাকে আমি সাড়া দেবো।’

এ মুহূর্তে যে আল্লাহকে কোনো কিছু পাওয়ার জন্য ডাকবে এবং আহ্বান করবে আল্লাহ তায়ালা তাকে চাহিদা মোতাবেক দান করবেন।

ইফতার মাহফিলে উপস্থিত ছিলেন, সংগঠনের সম্মানিত উপদেষ্টা ড. মঈন উদ্দিন, জালালাবাদ এসোসিয়েশন এর উপদেষ্টা ও সিনিয়র সহ সভাপতি সোনাহর খান রসিদ, জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সহ সভাপতি মহসিনুল কুদ্দুস, মামা সাংস্কৃতিশিল্পীগোষ্টীর প্রতিষ্টাতা এমদাদুল হক সবুজ মামা, বাংলাদেশ প্রেসক্লাব অব মালয়েশিয়ার সিনিয়র সহ সভাপতি ও জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সাধারন সম্পাদক আহমেদুল কবির, জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সহ সাধারন সম্পাদক আতিকুর রহমান বেলাল, জালালাবাদ এসোসিয়েশনের সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ এনামুল হক, আন্তর্জাতিক বিষয়ক সম্পাদক শেখ রুহেল দিলু, অর্থ-সম্পাদক ফারুক আহমদ পারুল, বিশিষ্ট ব্যাবসায়ী আলী আমজাদ, এছাড়াও উপস্থিত ছিলেন বিশিষ্ট সাংস্কৃতিক ব্যক্তিত্ব মোঃ জামাল উদ্দিন, ডায়নামিক ফেডারেশনের সিনিয়র সহ-সভাপতি দিলোয়ার হুসাইন, সহ-সভাপতি শাহ শাহীন, সহ- সভাপতি উসমান গণী, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক লায়েক মিয়া, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক মোঃ ইমাদ উদ্দিন, যুগ্ন সাধারণ সম্পাদক ইমরান আহমদ শিপন,সহ-সাধারণ সম্পাদক মো কাউসার আহমদ, সাংগঠনিক সম্পাদক কলিম উদ্দিন, সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ কৌশিক আহমেদ পাভেল, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক জুবেদ আহমদ, সহ সাংগঠনিক সম্পাদক মোঃ হোসাইন আহমদ, সাংস্কৃতিক সম্পাদক তানভীর আহমদ, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক জুনেদ আহমদ, ধর্ম – সম্পাদক মাঃ মারুফ আহমদ, সহ – ধর্ম-সম্পাদক মাঃ জাকারিয়া, সমাজ কল্যাণ সম্পাদক আবু সহিদ, কর্ম সংস্থান সম্পাদক জুয়েল আহমদ, মানবাধিকার বিষয়ক সম্পাদক রুমেন আহমদ, ওয়াহিদ উদ্দিন, নুরুল হোসাইন, দেলোয়ার হোসেন লিপু, মো সুহেল আহমদ, মো ইয়াহিয়া আল মামুন, মোঃ মনসুর আহমদ কামালি প্রমুখ।

আলোচনা সভা শেষে বিশ্ব মুসলিম উম্মাহ ও প্রবাসীদের মঙ্গল কামনায় বিশেষ মোনাজাত পরিচালনা করেন ড. সাইফুল্লাহ।

bdnewspaper24