Print Friendly, PDF & Email

বিশেষ প্রতিনিধি :  মে মাসের শেষে যৌথ ওয়াকিং গ্রুপের বৈঠকের কিছুদিনের মধ্যে মালয়েশিয়া শ্রমবাজারে ভালো খবর আসতে পারে বলে জানিয়েছেন প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্হান প্রতিমন্ত্রী ইমরান আহমেদ।

মঙ্গলবার মালয়েশিয়ার রাজধানী কুয়ালালামপুরে রয়েল চুলান হোটেলে সংবাদ সম্মেলনে প্রতিমন্ত্রী বলেন, ‘ আমার বিশ্বাস, মে মাস শেষ হোক।যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠক হোক। জানি না , তবে আমার মন বলে এর কিছু দিনের মধ্যেই পথটা ( শ্রমবাজার) খুলে যাবে।’

এর আগে দেশটির স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী মহিউদ্দিন ইয়াসিন এবং মানবসম্পদ মন্ত্রী কুলাসেগারেন এর সঙ্গে বৈঠক করেছেন  বাংলাদেশের প্রবাসী কল্যাণ ও বৈদেশিক কর্মসংস্থান প্রতিমন্ত্রী ইমরান আহমেদ ।

বৈঠক সূত্রে জানা যায়, মালয়েশিয়া সরকার শ্রমবাজারটি চালুর বিষয়ে খুবই আন্তরিক বলে জানিয়েছেন দেশটির দুই মন্ত্রী। তবে পদ্ধতিতে কিছু পরিবর্তন আনতে চায়। মে মাসের শেষে যৌথ ওয়ার্কিং গ্রুপের বৈঠকে অনুষ্ঠানিকভাবে সব ঠিক করার বিষয়ে একমত হয়েছে উভয় দেশ। সব ঠিকঠাক থাকলে ঈদের পর যে কোন দিন শ্রমবাজার চালুর আনুষ্ঠানিক ঘোষণা আসতে পারে। তবে কর্মী যাওয়া শুরু হতে আরও কিছুটা সময় লাগবে।

জানা গেছে, আনুষ্ঠানিক ঘোষণার পর আবারও এমওইউ হতে পারে। তাতেই উল্লেখ থাকবে কর্মীদের মেডিকেলসহ সকল পদ্ধতি। সব প্রক্রিয়া শেষ করে কর্মী যাওয়া শুরু হতে কয়েক মাসও লাগতে পারে।

ইমরান আহমেদ বলেন, শ্রমবাজারটি যে কারণে বন্ধ হয়েছে, সেগুলো আগে দূর করতে হবে। এ লক্ষ্যে মালয়েশিয়া কাজ করছে বলেও জানান প্রতিমন্ত্রী।

অনিয়মের অভিযোগ তুলে গেলো বছরের ১ লা সেপ্টেম্বরে বন্ধ হয়ে যায় মালয়েশিয়ায় কর্মী যাওয়ার অনলাইন পদ্ধতি এসপিপিএ।

 

একটি উত্তর ত্যাগ

Please enter your comment!
Please enter your name here